কম্পিউটার রক্ষণাবেক্ষণের সফটওয়ারের গুরুত্ব | ekathan

কম্পিউটার রক্ষণাবেক্ষণের সফটওয়ারের গুরুত্ব

কম্পিউটার রক্ষণাবেক্ষণের সফটওয়ারের গুরুত্ব

 আমরা প্রথমে দুটি ঘটনা সম্পর্কে জানবো । ও এর থেকে আমরা সম্পূর্ণ ধারণা নিতে পারব যে কম্পিউটারের সফটওয়্যার রক্ষণাবেক্ষণের গুরুত্ব সম্পর্কে ।

ঘটনা ১ 

রায়না কলেজে ভর্তি হওয়ার পর বাবার কাছে বায়না ধরেছে একটি ল্যাপটপ কিনে দেবার জন্য । বাবা প্রথম সাময়িক এর ফল ভালো হাওয়াই রায়না কে একটি কোর আই ফাইভ প্রসেসর যুক্ত একটি ল্যাপটপ কিনে দিলেন । ল্যাপটপে এবং এর গতি দেখে রায়না মুগ্ধ । সে কিছুক্ষণের মধ্যে অনেক সফটওয়্যার ইন্সটল করে ফেলল। কিন্তু রায়না লক্ষ্য করলো তার ল্যাপটপটি আস্তে আস্তে ধীর গতির হয়ে যাচ্ছে । এক বছরের মাথায় এসে দেখলো তার ল্যাপটপে কাজ করতে গিয়ে রায়না মহাবিরক্ত। কিছুদিন পর সে বাবাকে আরেকটি ল্যাপটপ কিনে দেবার জন্য আবদার করল ।

ঘটনা ২

অংকন তার কম্পিউটারে ইন্টারনেট কানেকশন নিয়েছে । এখন সে প্রায় ইন্টারনেটে বিভিন্ন ওয়েবসাইটে প্রবেশ করে । এতে তার লেখাপড়ার অনেক উপকার হচ্ছে । লেখাপড়া ছাড়া বসে বন্ধুদের ইমেইল করার গান শোনাও ছবি দেখার কাজে ইন্টারনেট ব্যবহার করে। কিন্তু মাজে মাজে কম্পিউটারটি কোনো কারণ ছাড়াই মাঝে মাঝে বিভিন্ন ওয়েবসাইটে ধুকে যাচ্ছে।

উপরে ঘটনা দুটো থেকে তোমরা কি বুঝলে তোমাদের অনেকের অভিজ্ঞতার সাথে মিলে যাচ্ছে । তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি সম্পর্কে এতদিনে তোমাদের অনেক কিছু জানা হয়ে গেছে । তোমরা নিশ্চয়ই বুঝে গেছ তথ্য যোগাযোগ প্রযুক্তির ক্ষেত্রে প্রসেসর ও সফটওয়্যার নির্ভর যন্ত্র । নতুন একটি কম্পিউটার ডেস্কটপ ল্যাপটপ বা ট্যাবলেট যাই হোক না কেন দেখবে খুব ভালো কাজ করছে।

কিন্তু কিছুদিন ব্যবহার করার পরে দেখবে এটি ক্রমশ ধীরগতি হয়ে যাচ্ছে । অর্থাৎ পুরনো হলে যন্ত্রটি কেমন ধীরে ধীরে ধীর গতির হয়ে যায় । অনেক সময় একটি কমান্ড দিয়ে অনেকক্ষণ অপেক্ষা করতে হয় । মাঝে মাঝে পরিস্থিতি এমন দাঁড়ায় যে রাগান্বিত হয়ে আরেকটি নতুন কম্পিউটার কিনে ফেলতে ইচ্ছা করে ।

এ অবস্থা থেকে মুক্তি পাবার উপায় তাহলে কি এখানে রয়েছে । কম্পিউটার রক্ষাণাবেক্ষণের গুরুত্ব বেশিরভাগ মানুষ আইসিটি যন্ত্রপাতি  রক্ষণাবেক্ষণ এই কাজটি করতে ভালো লাগে না । কিন্তু তারপরও এ কাজটি গুরুত্বপূর্ণ তুমি যদি তোমার যন্ত্র বা কম্পিউটার সম্পূর্ণ মাত্রায় কার্যক্রম রাখতে চাও তবে এটি রক্ষাণাবেক্ষণ করতে হবে । 

তোমার আইসিটি যন্ত্রটি যদি মাইক্রোসফট কোম্পানি উইন্ডোজ অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহার করে থাকো । তবে অপারেটিং সিস্টেম সবসময় হালনাগাদ বা আপডেট রাখতে হবে । ইন্টারনেটে সংযুক্ত  থাকলে সাধারণত স্বয়ংক্রিয়ভাবে আপডেট হয়ে থাকে।

অন্যান্য অপারেটিং সিস্টেম প্রায় একই ধরনের সুবিধা দিয়ে থাকে । তাছাড়া তোমাকে অবশ্যই মাঝে মাঝে রেজিস্ট্রি ক্লিনার সফটওয়্যার ব্যবহার করতে হবে । আর যদি না করো তোমার কম্পিউটার ঠিকভাবে কাজ করবেনা এবং তোমার জন্য অনেক সময় বিরক্তিকর কারন হবে ।
Post a Comment (0)
Previous Post Next Post